বাদামের উপকারিতা ও অপকারিতা

বাদামের উপকারিতা কি? বাদামের খাদ্যগুন সম্পর্কে জানেন? বাদামের উপকার যেমন আছে তেমনি কিছু অপকারিতা ও আছে। বাদামের উপকারিতা ও অপকারিতা সম্পর্কে জানাচ্ছেন ত্বক, লেজার এন্ড এসথেটিক বিশেষজ্ঞ ডা. সঞ্চিতা বর্মন।

আরও পড়ুন: লবণের উপকারিতা ও অপকারিতা

বাদামের উপকারিতা
বাদাম অন্যান্য স্বাস্থ্যকর খাবারের মত শরীরের জন্য উপকারী খাবার। এছাড়া বাদাম এ প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন-মিনারেল এবং অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আছে যেটা আমাদের শরীরে থাকা ক্ষতিকর টক্সিন এর পরিমাণ কমিয়ে দেয়, শরীরে শক্তির যোগান দেয় এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। হৃদরোগের জন্য বাদাম খুবই উপকারী। বাদাম আমাদের রক্তে খারাপ কোলেস্টেরলের পরিমাণ কমিয়ে দেয়। এছাড়া বাদামে থাকা প্রোটিন আমাদের শরীরের সঠিক বিকাশে সাহায্য করে। পলিফেনোলিক নামক অ্যান্টি অক্সিডেন্ট বাদামে থাকে, এটি  কোলন ক্যান্সার, হৃদরোগ, ভাইরাস ও ফাঙ্গাস ঘটিত রোগ এবং স্ট্রোক প্রতিরোধ করে। বাদামে থাকা ভিটামিন ই এবং অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আমাদের ত্বক ও চুলের জন্য খুব উপকারী। শরীরের ওজন কমাতেও বাদাম খুব উপকারী।

আরও পড়ুন: ধনেপাতার উপকারিতা জেনে নিন

বাদামের অপকারিতা
বাদামের অনেক উপকারী খাদ্যগুন থাকলেও অনেক ক্ষেত্রে বেশি বাদাম খেলে শরীরের জন্য ক্ষতিকর হয়ে যেতে পারে। বাদাম আঁশ জাতীয় খাবার, এজন্য বাদাম বেশি পরিমান খেলে পেটে গ্যাস সমস্যা পাশাপাশি পেট খারাপ ও হতে পারে। বাদাম বেশি প্রোটিন ওয়ালা খাবার এবং আমরা নিয়মিত মাছ, মাংস এবং ডাল থেকে প্রোটিন গ্রহণ করি। এজন্য প্রোটিন বেশি মাত্রায় গ্রহণ করলে কিডনি রোগের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ হতে পারে। এছাড়া বাদামে রয়েছে ম্যাগনেসিয়াম যেটা অনেক ওষুধের কার্যক্রমে বাধা দেয়। বাদাম খেলে আবার অনেকের এলার্জির সমস্যা হতে পারে।

পরিমিত বাদাম স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারী। এজন্য বেশি বাদাম একবারে না খেয়ে আপনার হাতের একমুঠো পরিমাণ প্রতিদিন বিকালে বা দুপুরে খেতে পারেন।

Photo Credit: Pixabay

মন্তব্য
Loading...
error: Content Is Protected !!