ল্যাপটপ স্লো হলে করণীয়

অনলাইন ক্লাস, হোম বা অফিসের কাজের জন্য ল্যাপটপ ব্যবহার করছেন অনেকই। কাজ করতে করতে স্লো হয়ে যাচ্ছে ল্যাপটপ। ল্যাপটপ স্লো হলে করণীয় কি সেটা নিচে দেয়া হল।

ল্যাপটপ স্লো হয়ে গেলে করণীয়

ল্যাপটপকে দ্রুততর করতে কয়েকটি হার্ডওয়্যার পরিবতর্ন করা করতে পারেন। তারমধ্যে একটি হচ্ছে সলিড স্টেট ড্রাইভার সংযোজন অন্যতম। এটি সবকিছুই দ্রুততর করে তোলে; বুট করা, শাট ডাউন, প্রোগ্রাম চালু করায় গতানুগতিক হার্ড ড্রাইভের তুলনায় এটি নিমিষেই কাজ করে।

একসঙ্গে অনেকগুলো ট্যাব খুলে রাখবেন না। প্রয়োজনীয় ট্যাপগুলোই শুধু সামনে রাখুন। একারণেও অনেক সময় ল্যাপটপ স্লো হয়ে যেতে পারে।

আরও পড়ুন: আইফোন আপডেট বন্ধ রাখার টিপস

নিয়মিত ম্যালওয়্যার স্ক্যান করুন। হতে পারে আপনি স্বেচ্ছায় ইনস্টল করেননি, এমন ক্ষতিকারক ও সন্দেহজনক কোনো সফটওয়্যার আপনার ল্যাপটপের গতি কমিয়ে রেখেছে। নিয়মিত ভাইরাস এবং ম্যালওয়্যার স্ক্যান এমন বিপজ্জনক কিছু থেকে আপনার ল্যাপটপকে সুরক্ষা দেবে।

অব্যবহৃত অ্যাপগুলো হার্ডড্রাইভে স্টোরেজ দখল করে রাখে। যা সিপিউ থেকে রিসোর্স শুষে নেয়। তাই, জাঙ্ক ডিলিট করে জায়গা খালি করুন এবং প্রসেসিং এর ক্ষমতা বৃদ্ধির মাধ্যমে আপনার কম্পিউটার দ্রুততর করুন।

ব্যাকগ্রাউন্ডে চালু থাকা যাবতীয় কিছু এবং অব্যবহৃত প্রোগ্রামের রিসোর্স আপনার কম্পিউটারের বুট-আপের গতি কমিয়ে দেয়।উইন্ডোজ ১০-এর টাস্ক ম্যানেজারে গিয়ে, স্টার্ট-আপে দেখুন আপনার কম্পিউটার চালুর সঙ্গে সঙ্গে কোন কোন প্রোগ্রাম চালু হয়।

ল্যাপটপ সমসময় পরিষ্কার রাখুন। অত্যধিক ধুলো জমে গেলে ওভারহিটে ঝুঁকি বাড়বে। ওভারহিট হলে প্রসেসর এবং গ্রাফিক্স কার্ডে অতিরিক্ত চাপ পড়বে। এক ক্যান কম্প্রেস্ড এয়ার সংগ্রহ করুন এবং প্রতিটি ভেন্ট পরিষ্কার করে প্রসেসর ও গ্রাফিক্স কার্ডকে নিঃশ্বাস নিতে দিন।

অনেকেই আছেন রিসাইকেল বিন খালি করেন না। এতে কিন্তু ল্যাপটপ স্লো হয়ে যেতে পারে। মাঝে-মাঝে রিসাইকেল বিন খালি করুন। এছাড়া Shift + Delete কমান্ডের ব্যবহার করতে পারেন আর এটি করে আপনি আপনার ফাইল পারমানেন্টলি ডিলিট করতে পারবেন।

আরও পড়ুন: উইন্ডোজ ১০ অটো আপডেট বন্ধ করার নিয়ম

আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন

আপনার ইমেইল আইডি প্রচার করা হবে না। কোন মন্তব্যে স্প্যাম লিংক/রেফারেল লিংক থাকলে সেটা প্রকাশ করা হবে না।

6 × = forty eight